• আজঃ বুধবার, ১১ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৫শে নভেম্বর, ২০২০ ইং
  • English

ঝালকাঠিতে স্বামী পরকিয়ার জেরে নারী পুলিশ কনস্টেবলের আত্মহত্যা

ঝালকাঠিতে সহকর্মীর পরকিয়ার জেরে নারী পুলিশ কনস্টেবলের আত্মহত্যার ঘটনায় স্বামী তরিকুল ইসলাম (পুলিশ সদস্য) গ্রেফতার ও ২ দিনের রিমান্ড  মঞ্জুর করেছে আদালত

ঝালকাঠিতে সহকর্মীর পরকিয়ার জেরে স্বামীর সাথে অভিমান করে এক নারী কনস্টেবল বিষপানে আত্মহত্যা করেছেন। বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালে বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে নাদিয়া আফরিন নামে ওই কনস্টেবলের মৃত্যু হয়। তিনি ঝালকাঠি পুলিশ লাইনে কর্মরত ছিলেন ।

তার স্বামী তরিকুল ইসলাম ও পরকিয়া প্রেমিক ফরহাদ একই স্থানে কনস্টেবল পদে কর্মরত রয়েছেন। স্বামী তরিকুল ইসলামকে গতরাতে গ্রেফতার করেছে ঝালকাঠি থানা পুলিশ।

পরিবার সুত্রে  জানা গেছে, বৃহ:স্পতিবার বিকেলে পুলিশ লাইনের নারী ব্যারাকে বসেই নাদিয়া বিষপান কওে বলে জানিয়েছে তার স্বামী তরিকুল ইসলাম। কিন্তু পুলিশ জানায় নাদিয়া ভাড়াটিয়া বাসায় বসে বিষপান করে।

বরিশাল শের-ই বাংলা হাসপাতালের একটি সূত্র জানায়- নাদিয়া আফরিন নামের নারী কনস্টেবল বিষপানে অসুস্থহয়ে বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে হাসপাতালের জরুরী বিভাগে আসেন। পওে তাকে ভর্তি করে মেডিসিন ওয়ার্ডে চিকিৎসা দেওয়া হ”িছল। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আড়াই ঘণ্টার মাথায় রাত ৮টার দিকে তার মৃত্যু ঘটে।

পুলিশ কনস্টেবল তরিকুলের মা জেসমিন বেগম বলেন, তরিকুল গত দুই বছর পূর্বে প্রথম বিয়ে করেন। নাদিয়া তরিকুলের ব্যাজমেট ছিল। গত তিনমাস পূর্বে ঝালকাঠি পুলিশ লাইনে পুলিশ কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে তাদের বিয়ে হয়। কিন্তু বিয়ের পূর্ব থেকেই নাদিয়ার আর এক ব্যাজম্যান কনস্টেবল ফরহাদের সাথে নাদিয়ার প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছিল। তাই এ বিয়ে মানতে পারেনি কনস্টেবল ফরহাদ। ফরহাদ তাদেও পূর্ব সম্পর্কেও প্রমানাদি দিয়ে ব্লাক মেইল করে আসছিল। এ ঘটনায় তরিকুল ও নাদিয়ার মধ্যে কলহ চলে আসছিল।

এর জের ধরে বৃহ:স্পতিবার সকালে তরিকুলের মায়ের উপস্থিতিতে কলহ শুরু হলে পুলিশ লাইনের আর.আই তাদের ব্যারাকে নিয়ে যায়, পরে তারিকুলের মা বাড়িতে চলে আসলে বিকেল ৫ টায় খবর পায় নাদিয়া বিষপান করেছে ঘটনায় তার ছেলেকে আটক করা হয় এবং নানা ভাবে ফাঁসানোর চেষ্টা চলছে বলে অভিযোগ করেন তিনি।

খবর শুনে সেখানে গিয়ে নাদিয়াকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়। তার পূর্বের প্রেমিক ফরহাদের কাছে কিছু অন্তরঙ্গ মুহুর্তেও ডকুমেন্ট থাকায় প্রায়ই তাকে ব্লাক মেইল কওে আসছিল। ফরহাদ কিছু ছবি তাদের অনান্য সহকর্মীদের নিকট ছড়িয়ে দিলে তাদের গোপন মুহুর্তেও তথ্য সবাই জেনে যাওয়ায় তাদের সম্মানহানি হয়েছে। এই লজ্জার কারনেই তার স্ত্রী নাদিয়া আত্মহত্যা করে। এ ঘটনায়পুলিশফরহাদকে আটকনাকরেউল্টোতাকে (তরিকুল) আটক করায় তিনি বিস্মিত হয়েছেন। তিনি মনে করেন তার সাথে তার বাহিনী অন্যায় আচারন করছে। ফরহাদকে আটক করার দাবী জানিয়েছেন তিনি।

 

ফেসবুকে লাইক দিন

Latest Tweets

তারিখ অনুযায়ী খবর

November 2020
FSSMTWT
 12345
6789101112
13141516171819
20212223242526
27282930