সিজার করতে গিয়ে নবজাতকের পিঠ কেটে ফেললেন ডাক্তার!

বরগুনার তালতলী উপজেলায় এক চিকিৎসকের বিরুদ্ধে অস্ত্রোপচারের সময় নবজাতকের পিঠ কেটে ফেলার অভিযোগ উঠেছে।

উপজেলার দোয়েল ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে শনিবার সন্ধ্যা ৬ টার দিকে এ ঘটনা ঘাটে।

প্রসূতির পরিবার সূত্রে জানা যায়, উপজেলা শহরের হোটেল ব্যবসায়ী ইব্রাহিম খলিল সোহাগের স্ত্রী লিপি আক্তার প্রসবব্যথা নিয়ে শনিবার দুপুরে হাসপাতাল সড়কের দোয়েল ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে ভর্তি হন।

পরে সন্ধ্যায় ওই ক্লিনিকের স্ত্রী ও প্রসূতি রোগ বিশেষজ্ঞ ডা. রুনা রহমান অস্ত্রোপচার করার সময় নবজাতকের পিঠ কেটে ফেলে।

নবজাতকের বাবা ইব্রাহিম খলিল সোহাগ বলেন, সিজারিয়ান অপারেশন ১ ঘন্টা পরে কন্যা শিশুটির গায়ে কাপড় পেঁচিয়ে আমার হাতে তুলে দেয়। পরে অনবরত কান্না করতে থাকে এসময় শিশুটির শরীরে রক্ত দেখতে পাই।

পরে গায়ের কাপড় খুলে ডানবাহুর নিচে ছুরির আঘাতে কেটে যাওয়ার ক্ষত দেখতে পাই। বিষয়টি ক্লিনিক কর্তৃপক্ষকে জানালে তারা কোন সদুত্তর দিতে পারেননি।

এ বিষয়ে ডা. রুনা রহমানের বক্তব্য জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলতে রাজি হননি।

বরগুনা সিভিল সার্জন ডা. ফজলুল হক বলেন, এ বিষয়ে লিখিত অভিযোগ পেলে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ফেসবুকে লাইক দিন

Latest Tweets

তারিখ অনুযায়ী খবর

June 2024
F S S M T W T
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
282930